সোনালী স্মৃতি

সোনালী স্মৃতি

একাকী নির্জনে বসে আমি আনমনে,
সোনালী স্মৃতিরা উকি দেয় ক্ষণে ক্ষণে।

কত শত দুষ্টুমি আর হাসি ঠাট্টা,
কখনো বা টিফিনের জমে ওঠা আড্ডা।

মনে পড়ে সেই বন্ধুর গা ঘেষে বসা,
কখনো বা কারো পানে আড় চোখে হাসা।

চুপিসারে কারো গায়ে আকাআকি করা,
কখনো বা একসাথে ছোটাছুটি করা।

কখনো তোর সাথে মিষ্টি একটা ঝগড়া,
কখনো বা তোকে নিয়ে দু-এক লাইন ছড়া।

কখনো বা তোর চুলের বেনিতে দিতাম একটা টান,
বিনিময়ে দিতি আমার পিঠে ছোট্ট কিল এর বান।

কখনও কারো ঘাড়ে মাথায় ছুটাইতাম কাগজের প্লেন,
“তরে আমি..” বলেই আসতি তেড়ে পার হয়ে তোদের লেন।

পারি কি ভুলিতে তোদের সাথে ক্রীড়া কৌতুকের কথা,
কেউ হাড়িভাঙ্গা খেলায় হাড়ির বদলে ফাটাইলো আমার মাথা।

হঠাৎই যেনো কোনো এক এলোমেলো হাওয়ায়,
হারিয়ে গেলি তোরা সবাই কোন দূর অজানায়।

মন শুধু চায় তবু আজ পেছন ফিরে হাটতে,
ইচ্ছে করে আবার সেই স্কুলে ফিরে যেতে।

ভালো লাগে না একাকী এই ধুসর বিবর্ণ জীবন,
বন্ধু তোদের এখনো আমি মিস করছি খুব ভীষণ।


সোনালী স্মৃতি

মোঃ নাজমুল হুদা -১৯৯৪

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.